বাহরাইন-ইসরায়েল নতুন সম্পর্ককে স্বাগত জানাল ওমান

0

ইসরায়েলের সঙ্গে বাহরাইনের সম্পর্ক স্বাভাবিক করার সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছে ওমান। রবিবার ওমানের রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, এই সিদ্ধান্ত ইসরায়েল-ফিলিস্তিনের শান্তি স্থাপনে ভূমিকা রাখবে।

ওমান সরকার এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, কয়েকটি আরব দেশের এই নতুন কৌশলগত পথ ফিলিস্তিনি ভূখণ্ডে ইসরায়েলি দখলদারিত্বের অবসান ঘটিয়ে শান্তির পথে ভূমিকা রাখবে। এবং পূর্ব জেরুজালেমকে রাজধানী করে একটি স্বাধীন ফিলিস্তিন রাষ্ট্র গঠনের পথ সুগম করবে।

গত মাসে ইসরায়েলে সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিক করার ঘোষণা দেয় মধ্যপ্রাচ্যের উপসাগরীর দেশ সংযুক্ত আরব আমিরাত (ইউএইএ)। এরপর শুক্রবার এক ঘোষণায় ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিক করতে রাজি হওয়া সংযুক্ত আরব আমিরাতের পদক্ষেপ অনুসরণের ঘোষণা দেয় বাহরাইন।

আরও পড়তে পারেন : আমিরাত-বাহরাইনের সঙ্গে চুক্তি স্বাক্ষর করতে যুক্তরাষ্ট্র যাচ্ছেন ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রী

বাহরাইন এবং ওমান উভয়ই যুক্তরাষ্ট্রের উদ্যোগে হওয়া সংযুক্ত আরব আমিরাত-ইসরায়েল শান্তিচুক্তির প্রশংসা করে একে স্বাগত জানিয়েছিল।

ইসরায়েল ও সংযুক্ত আরব আমিরাতের ঐতিহাসিক শান্তিচুক্তির পর বাহরাইন এবং ওমানও একই পথে হাঁটতে পারে বলে জানিয়েছিলেন ইসরায়েলের গোয়েন্দা বিষয়ক মন্ত্রী এলি কোহেন। তার বক্তব্যের সত্যতা এরই মধ্যে অনেকটা পরিষ্কার হয়ে উঠেছে।

মধ্যপ্রাচ্যে ক্রমশ প্রভাবশালী হয়ে ওঠা ইরানকে ঠেকাতে সৌদি আরবের মিত্র দেশ হিসেবে পরিচিত সংযুক্ত আরব আমিরাত ও বাহরাইন তেল আবিবের সঙ্গে হাত মেলাতে যাচ্ছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। তবে তাদের এ পদক্ষেপ স্বাধীন-সার্বভৌম রাষ্ট্রের দাবিতে কয়েক দশক ধরে সংগ্রাম চালিয়ে যাওয়া ফিলিস্তিনিদেরকে আরও বিপাকে ফেলবে বলে অনুমান পর্যবেক্ষকদের।

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।