সৌদিয়ার বহরে প্রথম বোয়িং ৭৮৭-১০ ড্রিমলাইনার

0

সৌদি আরব এয়ারলাইনস, যা সৌদিয়া নামেও পরিচিত, তার প্রথম বোয়িং ৭৮৭-১০ ড্রিমলাইনার উড়োজাহাজ ডেলিভারি নিয়েছে আমেরিকান উড়ােজাহাজ নির্মাতা প্রতিষ্ঠান বোয়িং থেকে। নতুন উড়োজাহাজটি সৌদি আরবের জাতীয় বিমানসংস্থা সৌদিয়ার ১৩টি বোয়িং ৭৮৭-৯ ড্রিমলাইনারের বিদ্যমান বহরে যুক্ত হলো।

নতুন বোয়িং ৭৮৭-১০ ড্রিমলাইনারের ৩৫৭টি আসন রয়েছে। বোয়িং ৭৮৭-৯ ড্রিমলাইনার উড়োজাহাজ দুটি শ্রেণির কনফিগারেশনে ২৯৮ আসন রয়েছে।

বোয়িং ৭৮৭ ছাড়াও, সৌদিয়া বর্তমানে ৩৩ টি বোয়িং ৭৭৭ উড়োজাহাজ পরিচালনা করে, যা মূলত দীর্ঘ দূরত্বের আন্তর্জাতিক রুটগুলোতে ব্যবহৃত হচ্ছে।

স্কাইটিম এয়ারলাইন জোটের সদস্য সৌদিয়া আরাে নয়টি বোয়িং ৭৮৭-১০ ড্রিমলাইনার উড়োজাহাজ পাবেন। তার উপরে,বিমানসংস্থাটির বহরে এয়ারবাস এ৩২০, এ৩২১ এবং এ৩৩০ উড়োজাহাজ রয়েছে।

অন্যদিকে, জাতীয় বিমানসংস্থাটি এ৩২০ নিও এর পাশাপাশি এ৩২১ নিও পরিবার উড়ােজাহাজের জন্য অগ্রিম অর্ডার দিয়েছি এয়ারবাস কোম্পানিকে। এ ছাড়া ৩০টি এয়ারবাস এ ৩২০ উড়োজাহাজ স্বল্প খরচের সহযোগী বিমানসংস্থা ফ্লাইয়াডিলে সরবরাহ করবে সৌদিয়া। বোয়িং ৭৩৭ ম্যাক্স বাতিল করায় নতুন উড়োজাহাজের প্রয়ােজন পড়ে সংস্থাটির।

নতুন উড়োজাহাজগুলোর ২০২১ সালে সরবরাহ শুরু হওয়ার কথা ।

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।