মরিশাসের জন্য মানবিক সহায়তা পাঠালো বাংলাদেশ

পরিবেশ বিপর্যয়ের মুখেপড়া

0

ভারত মহাসাগরে অবস্থিত দ্বীপরাষ্ট্র মরিশাস উপকূলে দুর্ঘটনা কবলিত জাপানি জাহাজের তেল নি:সরণে মারাত্মক পরিবেশ বিপর্যয়ের মুখেপড়া বন্ধুপ্রতীম দেশটির দুঃসময়ে পাশে দাঁড়িয়েছে বাংলাদেশ। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে বাংলাদেশ হাইকমিশনের মাধ্যমে প্রথমবারের মতো বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে মরিশাস সরকারকে মানবিক সহায়তা প্রদান করা হয়েছে।

বুধবার (১৬ সেপ্টেম্বর) মরিশাসের পরিবেশ, বর্জ্য ব্যবস্থাপনা ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী কাভিদাস রামালোর কাছে বাংলাদেশ সরকারের পাঠানো মানবিক সহায়তা সামগ্রী হস্তান্তর করেন দেশটিতে নিযুক্ত হাইকমিশনার রেজিনা আহমেদ ।

সামগ্রীর মধ্যে রয়েছে ১ হাজার পিস পিপিই, ১ হাজার পিস হেড ক্যাপ, ১ হাজার পিস সু-কাভার, ১ হাজার পিস সার্জিক্যাল ফেইস মাস্ক এবং খাদ্য সামগ্রী (বিস্কুট ও কেক)। গতকালই এমিরেইটস এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইটে ৩৯ টি কার্টুনে এই সব মানবিক সহায়তা সামগ্রী মরিশাসে এসে পৌঁছায়।

এ সময় মরিশাসের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এবং পরিবেশ, বর্জ্য ব্যবস্থাপনা ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের উর্ধ্বতন কর্মকতাবৃন্দ এবং বাংলাদেশ হাইকমিশনের কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

মন্ত্রী এই বিপর্যয়ের সময় মানবিক সহায়তা প্রদানের জন্য বাংলাদেশ সরকারকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান।

প্রসঙ্গতঃ গত ২৫ জুলাই জাপানের নাগাশাকি শিপিং কোম্পানির জাহাজ এমভি ওয়াকিশিও মরিশাসের দক্ষিণাংশে আটকে গিয়ে দুর্ঘটনায় পড়ে। জাহাজটি ৩ হাজার ৮৯৪ মেট্রিক টন লো-সালফার ফুয়েল ওয়েল, ২০৭ মেট্রিক টন ডিজেল এবং ৯০ মেট্রিক টন লুব্রিকেটিং তেল নিয়ে চায়না হতে ব্রাজিলের পথে ছিল।

জাহাজটি থেকে হতে প্রায় ৩ হাজার মেট্রিক টন তৈল উত্তোলন করা সম্ভব হলেও বাকি তৈল সাগরের পানিতে ছড়িয়ে পড়ে। এতে মরিশাসের সমুদ্র সৈকতে তেলের আস্তরণ ভাসতে থাকে যার ফলে সমুদ্রের প্রাকৃতিক পরিবেশ ও জীব-বৈচিত্রের জন্য হুমকির আশঙ্কা করা হচ্ছে।

সমুদ্রে ভাসতে থাকা তৈল অতি দ্রুত অপসারণ করা না গেলে মরিশাসসহ আশে পাশের বিস্তৃত অঞ্চল অর্থাৎ ব্লু-ইকোনমি মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হবে। এরই পরিপ্রেক্ষিতে মরিশাস সরকার পরিবেশগত জরুরী অবস্থা ঘোষণা করেছে এবং এ ধরনের প্রাকৃতিক বিপর্যয় হতে দ্রুত উত্তেরণের লক্ষ্যে সকল বন্ধু রাষ্ট্রের সহযোগিতা আহ্বান করেছে এবং বিশ্বের বিভিন্ন দেশ তাদের সাথে একাত্বতা ঘোষণা করে পরিস্থিতি মোকাবেলা করে যাচ্ছে। মরিশাসের আহবানে সাড়া দিয়ে এগিয়ে এসেছে বাংলাদেশেও।

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।