টানা ৬ মাস ঘুমিয়ে কাটান যে সুন্দরী কন্যা!

0

মহাকবি বাল্মীকির লেখা রামায়ণের সেই ‘কুম্ভকর্ণ’ ফিরে এলেন বাস্তবে৷ তবে বিশালদেহী রাক্ষস হয়ে নয়৷ এক সুন্দরী হয়েই তার আগমন হল৷ ভোল পাল্টালেও স্বভাব পালটায়নি৷ এখনো দিব্বি ঘুমকাতুরে৷ কুম্ভকর্ণের মতোই টানা ৬ মাস ঘুমিয়ে কাটান এই সুন্দরী!

অবাক করা ঘটনা৷ ব্রিটেনের ২২ বছরের তরুণী বেথ গোডিয়ার যেন এ যুগের ‘লেডি কুম্ভকর্ণ’৷ তিনি একবার শুয়ে পড়লে ৬ মাসের আগে চোখ খোলেন না৷ বহু চেষ্টা করেও তাকে জাগানো যায় না৷ আত্মীয়রা অধীর আগ্রহে বেথের ঘুম ভেঙে জেগে ওঠার প্রহর গুণতে থাকেন৷

বেথ গডিয়ার এক বিরল রোগে আক্রান্ত৷ ক্লিন-লেভিন সিনড্রোম নামেই পরিচিত এই রোগ৷ একশ জনের মধ্যে একজন এই রোগে আক্রান্ত হন৷ রোগীর এমনই অবস্থা হয় যে, দিনের পর দিন মাসের পর মাস সে ঘুমিয়ে থাকে৷ দুচোখ জুড়ে নেমে আসে নিশ্চিন্তের ঘুম৷ সেই ঘুম ভাঙলেই রোগীর খিদে পায়৷ ঠিক যেমন রাবণের ভাই কুম্ভকর্ণ ৬ মাস ঘুমিয়ে প্রচুর খেতেন৷

ক্লিন-লেভিন সিনড্রোম অর্থাৎ ঘুম রোগে আক্রান্তরা জেগে উঠলে দু সপ্তাহের মতো সময় পান৷ সেই সময় তাদের দেখলে কিছুই মনে হবে না৷ একেবারে স্বাভাবিক আচরণ৷ ৬ মাস ঘুমিয়ে থাকার পর বেথ গডিয়ার যখন জেগে ওঠেন তখন এমনই দেখতে লাগে৷

১৭ বছর বয়সে ঘুম রোগে আক্রান্ত হন বেথ৷ হুঁশ ফিরলে প্রাত্যহিক কর্ম করা ও খেতে পারেন তিনি৷ মাত্র ১৪ দিনের জন্য তার ঘুম ভাঙে৷ ঘুম রোগের কারণে লেখাপড়া ছাড়তে হয়েছে৷ কারো সঙ্গে দেখা করতে পারেন না তিনি৷ তবে ঘুমরোগী লেডি কুম্ভকর্ণের কিন্তু প্রেমিক রয়েছে৷ তিনি প্রায়ই বেথকে দেখতে আসেন৷ ঘুমিয়ে থাকা প্রেমিকা বেথের কাছে বসে থাকেন৷ ৬ মাস পর পর যখন ঘুম ভাঙে সে সময় দুজনের কথা হয়

চিকিৎসকরা এই রোগের কারণ খুঁজছেন৷ চলছে বিস্তর গবেষণা৷ তারই মধ্যে ঘুমিয়ে জীবন কাটাচ্ছেন বেথ ৷

করোনাময় বিশ্ব : কেমন আছেন স্পেনপ্রবাসী বাংলাদেশিরা

১৮ জুলাই, শনিবার – স্পেন সময় : বিকেল ৫.৩০ টা, বাংলাদেশ সময় : রাত ৯.৩০ টা সঞ্চালনায় : আহমেদ তোফায়েল, সাংবাদিক ও উপস্থাপকসমন্বয় ও সহযোগিতা : কবীর আল মাহমুদ, লেখক ও সাংবাদিক, অতিথি এনায়েতুল করিম তারেক, সভাপতি, বাংলাদেশ এসোসিয়েশন ইন স্পেনএম এইচ সোহেল ভূঁইয়া, সভাপতি, বৃহত্তর ঢাকা এসোসিয়েশন ইন স্পেনকামরুজ্জামান সুন্দর, সাধারণ সম্পাদক বাংলাদেশ এসোসিয়েশন ইন স্পেনমো. মনোয়ার পাশা , সভাপতি, এসোসিয়েশন. কুলতুরাল দে সুনামগঞ্জ এন কাতালুনিয়া

Posted by AkashJatra on Saturday, July 18, 2020

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।