মালয়েশিয়ায় হত্যার অভিযোগে ১২ বাংলাদেশি আটক

0

মালয়েশিয়ায় এক বাংলাদেশিকে হত্যার অভিযোগে ১২ বাংলাদেশিকে আটক করেছে দেশটির পুলিশ। পেনাং রাজ্যের সেবারাং পেরাইয়ের জালান আরা কুডাতে সবজি বাগানে কর্মরত বাংলাদেশিকে কে বা কারা হত্যা করে ফেলে যায়। বুধবার তার রক্তাক্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। নিহতের নাম মো. আবদুল লতিফ (৫৯)।

হত্যাকাণ্ডে জড়িত সন্দেহে বৃহস্পতিবার (১১ জুন) ১২ বাংলাদেশিকে সেখানকার একটি হোস্টেল থেকে আটক করা হয় বলে জানায় স্থানীয় পুলিশ। আটকৃতদের আনুমানিক বয়স ২৫ থেকে ৪০ বছর বয়সী। তাদের ৭ দিনের রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে।

পুলিশ জানায়, গত বুধবার সকাল ৭টার দিকে পেনাংয়ের তাসেক গেলুগর এলাকার পানির পাম্পকিনের একটি ফার্ম থেকে মোহাম্মদ আবদুল লতিফ (৫৩) নামের এক বাংলাদেশীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়। এসময় নিহতের কপালে, বাম গালে মারাত্মক জখম এবং ডান হাঁটুতে ধারালো কোন ছুরি বা কোদাল দিয়ে আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়।

পরে ওই এলাকার একজন মালি জানান, খুন হওয়া বাংলাদেশী লতিফ গত বুধবার সকাল ৯টার দিকে বাংলাদেশে পরিবারের জন্য টাকা পাঠানোর উদ্দেশ্যে ও অন্যান্য শ্রমিকদের বেতন আনতে মালিকের বাড়িতে গিয়েছিল। পরে মালিকের কাছ থেকে পাওয়া মালয়েশিয়ান ৪ হাজার রিঙ্গিত অর্থ নিয়ে বাসায় চলে যান। এরপরের দিন সকালে তাকে মৃত অবস্থায় পাওয়া যায়।

উল্লেখ্য, লতিফ গত ৩ বছর ধরে একটি সবজি বাগানে কাজ করতেন। বর্তমানে কাজকর্ম না থাকায় নিজ দেশের লোকজনের কাছে কিছু মোবাইল কার্ড বিক্রি করতেন এবং বাগানের অন্যান্য শ্রমিকদের বেতনের টাকা তাদের পরিবারের নিকট পাঠাতে সাহায্য করতেন।

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

Loading...