মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশ সশস্ত্র বাহিনী দিবস উদযাপন

0

মালয়েশিয়ায় বর্ণাঢ্য আয়োজনে বাংলাদেশ সশস্ত্র বাহিনী দিবস ২০২২ উদযাপন করা হয়েছে। মালয়েশিয়াসহ বিভিন্ন দেশের সশস্ত্র বাহিনীর প্রতিনিধি, কুটনীতিক এবং অতিথিদের উপস্থিতিতে অনুষ্ঠানটি বর্ণিল ও প্রাণবন্ত হয়ে ওঠে।

বৃহস্পতিবার (২৪ নভেম্বর) কুয়ালালামপুরের হোটেল রয়েল চুলানে বাংলাদেশ হাইকমিশনের উদ্যোগে ও প্রতিরক্ষা শাখার সার্বিক ব্যবস্থাপনায় আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন মালয়েশিয়ার বিমান বাহিনী প্রধান জেনারেল তান শ্রী দাতো শ্রী মোহাম্মদ আসগর খান বিন গরিমন খান।

মালয়েশিয়া প্রবাসের খবর জানতে, এখানে ক্লিক করে আকাশযাত্রার ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকার অনুরোধ

Travelion – Mobile

এছাড়া, মালয়েশিয়ার গোয়েন্দা সংস্থার মহাপরিচালক লেফটেন্যান্ট জেনারেল দাতুক আহম্মদ নরিয়ান বিন জালালসহ প্রায় ৪৫টি দেশের প্রতিরক্ষা উপদেষ্টা, মালয়েশিয়া সশস্ত্র বাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ, বিভিন্ন মন্ত্রণালয় গুরুত্বপূর্ণ কর্মকর্তাবৃন্দ ও স্থানীয় কমিউনিটি প্রতিনিধি এবং সাংবাদিক অনুষ্ঠানে অংশ নেন।

অনুষ্ঠানের শুরুতে বাংলাদেশ ও মালয়েশিয়ার জাতীয় সংগীত পরিবেশন করা হয়।। স্বাগত বক্তব্যে মালয়েশিয়া হাইকমিশনের প্রতিরক্ষা উপদেষ্টা কমডোর মোস্তাক আহমেদ সশস্ত্র বাহিনী দিবসের তাৎপর্য তুলে ধরেন।

তিনি বলেন, ‘জাতির পিতার আহ্বানে মুক্তিকামী বাঙালির সঙ্গে সশস্ত্র বাহিনীর বাঙালি সদস্যরা বীরদর্পে যুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়েন। ২১ নভেম্বর ১৯৭১ সালে প্রথমবারের মতো সেনা, নৌ এবং বিমান বাহিনী একযোগে দখলদার পাকিস্তানী বাহিনীর বিরুদ্ধে সম্মিলিতভাবে সুসংগঠিত আক্রমণ রচনা করে, যার ফলশ্রুতিতে ১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বর বাংলাদেশ পৃথিবীর মানচিত্রে একটি স্বাধীন দেশ হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করে’।

মালয়েশিয়ার বিমান বাহিনী প্রধান জেনারেল তান শ্রী দাতো শ্রী মোহাম্মদ আসগর খান বিন গরিমন খান সঙ্গে  বাংলাদেশে হাইকমিশন পরিবার (উপরে) । কমিউনিটি নেতাদের সঙ্গে প্রধান অতিথি ও হাইকমিশনার (নিচে) ।
মালয়েশিয়ার বিমান বাহিনী প্রধান জেনারেল তান শ্রী দাতো শ্রী মোহাম্মদ আসগর খান বিন গরিমন খান সঙ্গে বাংলাদেশে হাইকমিশন পরিবার (উপরে) । কমিউনিটি নেতাদের সঙ্গে প্রধান অতিথি ও হাইকমিশনার (নিচে) ।

তিনি আরো বলেন যে, পেশাগত দক্ষতার কারণে বাংলাদেশ সশস্ত্র বাহিনী আজ বিশ্বের বুকে সমাদৃত এবং জাতিসংঘ শান্তি মিশনে সর্বোচ্চ সংখ্যক শান্তিরক্ষী নিয়োগের জন্য সমুজ্জল।

আমন্ত্রিত অতিথিরা বাংলাদেশ সশস্ত্র বাহিনীর সমুন্নত পেশাগত দক্ষতার ভূয়সী প্রশংসা করে অভিনন্দন জানান।

মালয়েশিয়ায় নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার মো: গোলাম সারোয়ার তাঁর বক্তব্যে বাংলাদেশের স্বপ্নদ্রষ্টা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আহবানে বাংলাদেশের সংগ্রাম ও স্বাধীনতার প্রেক্ষাপট তুলে ধরেন।

তিনি প্রধানমন্ত্রীর বলিষ্ঠ নেতৃত্বে দেশকে অর্থনৈতিক ভাবে এগিয়ে নেয়ার পাশাপাশি বিশ্বের বুকে বাংলাদেশকে গর্বের সাথে তুলে ধরার বিষয়টি অতিথিদের সামনে তুলে ধরেন।

হাইকমিশনার দেশের অবদানে বাংলাদেশ সশস্ত্র বাহিনীর সার্বিক ভূমিকা ও অবদানের ভূয়সী প্রশংসা করেন।

মালয়েশিয়া প্রবাসের খবর জানতে, এখানে ক্লিক করে আকাশযাত্রার ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকার অনুরোধ

অনুষ্ঠানে ৫১তম সশস্ত্র বাহিনী দিবস উপলক্ষে কেক কাটা হয়। নৈশভোজরন সময় ‘বাংলাদেশ সশস্ত্র বাহিনী দিবস’ উপলক্ষে নির্মিত তথ্যচিত্র প্রদর্শন করা হয়।

al sohar – mobile

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন