মরিশাসে ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস পালিত

0

মুজিবনগর সরকারের ৫০ বছর উপলক্ষে মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস সবার সামনে তুলে ধরতে মরিশাসে বাংলাদেশ হাইকমিশন যথাযথ মর্যাদায় ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস পালন করে।

কোভিড-১৯ রোধে লকডাউন চলমান থাকায় এ উপলক্ষে রাজধানী পোর্ট লুইস হাইকমিশন প্রাঙ্গণে সংক্ষিপ্ত আকারে ইন-হাউজ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

এ ছাড়া দিবসটি উপলক্ষে আয়োজিত ওয়েবিনারে হাইকমিশনের কর্মকর্তারা এবং মরিশাস, সিশেলস এবং মাদাগাস্কারের প্রবাসী বাংলাদেশিদের অংশ নেন। শুরুতেই দিবসটি উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর বাণী পাঠ করা হয়।

ওয়েবিনারে হাইকমিশনার রেজিনা আহমেদ তাঁর বক্তেব্যের শুরুতে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, জাতীয় চার নেতা, মুক্তিযুদ্ধে ৩০ লক্ষ শহীদ এবং নির্যাতিত ২লক্ষ মা-বোনদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানান।

ঐতিহাসিক এ দিবসের প্রেক্ষাপট ও ইতিহাস তুলে ধরে তিনি বলেন, “১৯৭১ সালের ১০ এপ্রিল স্বাধীনতার ঘোষণাপত্র জারির মাধ্যমে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার গঠন করা হয় এবং ১৭ এপ্রিল মেহেরপুর জেলার বৈদ্যনাথতলায় আম্রকাননে এ সরকারের শপথ নেওয়ার মাধ্যমে আনুষ্ঠানিকভাবে সেদিন থেকে ঐ স্থানটি মুজিবনগর নামে পরিচিতি লাভ করে”।

তিনি আরো বলেন, “মুজিবনগর সরকার গঠনের মাধ্যমে আন্তর্জাতিক পরিমন্ডলে আমাদের স্বাধীনতা সংগ্রাম বিশ্ব জনমতের অনুকূলে চলে আসে, যা চূড়ান্ত বিজয়কে তরান্বিত করে”।

অনুষ্ঠানে চলচ্চিত্র ও প্রকাশনা অধিদপ্তর নির্মিত “মুজিবনগর: বাংলাদেশের প্রথম রাজধানী” শীর্ষক বিশেষ প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শন করা হয়।

করোনা মহামারীর সময়ে ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস উপলক্ষে হাইকমিশন আয়োজিত ওয়েবিনারে যুক্ত হতে পেরে প্রবাসী বাংলাদেশিরা গর্ববোধ করেন।

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন