করোনায় বাতিল হওয়া বিমানের টিকিটে ভ্রমণ করতে পারবেন

0

করোনাভাইরাসের কারণে বাতিল হওয়া ফ্লাইটের টিকিটে ২০২১ সালের ১৪ মার্চ পর্যন্ত ভ্রমণ করতে পারবেন বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের যাত্রীরা।

তবে, কোনো যাত্রী টিকিট বাতিল করে অর্থ ফেরত চাইলে নিতে পারবেন তাও। আর এজন্য গুণতে হবে না বাড়তি কোনো চার্জও।

বুধবার (১৩ মে) সকালে গণমাধ্যমে পাঠানো এক ক্ষুদেবার্তায় এসব তথ্য জানিয়েছেন বাংলাদেশ বিমানের ব্যবস্থাপনা পরিচালক।

বিমান কর্তৃপক্ষ জানায়, ৩১ মার্চ পর্যন্ত যাত্রীদের পাওনার পরিমাণ ছিল ২শ ৪০ কোটি টাকা।

করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে সিভিল অ্যাভিয়েশনের নিষেধাজ্ঞার কারণের বর্তমানে বিশেষ ফ্লাইট ছাড়া বন্ধ রয়েছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের নিয়মিত সব ফ্লাইট।

বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে আগামী ১৬ মে পর্যন্ত বন্ধ রয়েছে যাত্রিবাহী অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক বিমান চলাচল। করেনার প্রভাবে জানুয়ারি মাস থেকে যাত্রী কমতে থাকে বিমানের। ফেব্রুয়ারি মাস থেকে ফ্লাইট সংখ্যাও কমে যায়। পরে মার্চ মাসে বিভিন্ন আকাশপথে ফ্লাইট চলাচল বন্ধ করে দেয় বিমান।

২৯ মার্চ লন্ডন ও ম্যানচেস্টারের ফ্লাইট পরিচালনার পর থেকে বিমানের আর কোনো ফ্লাইট পরিচালনা হয়নি। তবে গত এপ্রিল থেকে বেশ কিছু চার্টার্ড ফ্লাইট পরিচালনা করছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনস।

আগের খবর
বাংলাদেশে ফ্লাইট চলাচলে বেবিচকের ৩৫ নির্দেশনা

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

Loading...