ওমানের ঐতিহ্যবাহী ঈদ বাজারগুলো এখন শুধুই স্মৃতি!

0

ওমানের রাজধানী মাস্কটের ওয়াদি কবীর এলাকার ঐতিহ্যবাহী হাবতা বাজার, যা জুমা মার্কেট হিসেবেই বেশি পরিচিত। ঈদের ক্রেতাদের ভিড়ে মুখর থাকত। জমজমাট কেনা-বেচায় থাকত সর্বদাই সরব আর প্রাণচাঞ্চল্যে ভরপুর। অথচ করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে জমায়েতের উপর সরকারি নিষেধাজ্ঞা থাকায় এখন সেটি যেন এক ভুতুড়ে নগরী।

শুধু ওয়াদি কবীরের এই বাজার শুধু নয় করোনা রোধে মানুষের জমায়েত এড়াতে এবার ওমানের সকল প্রদেশের হাবতা বাজার বা ঈদ বাজার বাতিল করেছে কর্তৃপক্ষ।

ওমান অবজারভারে প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এটি এমন এক বাজার যেখানে ওমানের নাগরিক এবং প্রবাসি সবাই ভীড় করতেন। শুধু গবাদি পশু কেনার জন্যই নয় তারা খেলনা থেকে শুরু করে গৃহস্থালী সামগ্রী সবই পেতেন এখানে। তবে করোনা প্রাদূর্ভাব প্রতিরোধে নিষেধাজ্ঞার কারণে এ বছর দ্বিতীয়বারের মত বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে এই জনপ্রিয় হাট-বাজারটি।

আবদুল্লাহ আল বালুচি নামের এক স্থানীয় বলেন, আমার জীবনে এই প্রথম ঐতিহ্যবাহী বাজারটিকে এভাবে দেখছি, কোন কার্যকলাপ ছাড়াই। সাধারণত, এই মৌসুমে, জায়গাটি মানুষ এবং পশু উভয়েরপদচারণায় মুখর থাকে।”

ওমান সুলতানাত তার ঐতিহ্যবাহী বাজার জন্য বিশ্বখ্যাত পরিচিত যেখানে প্রতিটি প্রদেশে এমন বাজার রয়েছে। ওমানের সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের এই বাজারে কেনাকাটা করা ওমানিদের জন্য একটি ঐতিহ্য এবং প্রজন্ম থেকে প্রজন্মে এটি হয়ে আসছে।

ওমানের মৌসুমকেন্দ্রিক বাজার হাবতা। যার নামের অর্থ আরবী ভাষায় বাজারে আসা। সাধারণত ঈদ উদযাপনের আগে আয়োজন করা হয় এই বাজার। যেখানে গবাদি পশু, ফল এবং শাকসবজি সহ স্থানীয় পণ্য নিয়ে বসে পসরা। পণ্যে সাথে থাকে মিষ্টি ও মশলা। এখানে ঈদের কেনাকাটার মৌসুম সাধারণত রমজান থেকে শুরু হয়। চলে ঈদুল আজহার মৌসুম পর্যন্ত টানা তিন মাস।

আবদুল্লাহ নামের আরো এক ওমানি ওমান অবজারভারকে বলেন, “এই বাজার থেকে একটি পশু না কিনলে ঈদ উদযাপন সম্পূর্ণ হয়েছে বলে মনে হয়না। এই বাজার ক্রেতা এবং বিক্রেতা উভয়ের জন্যই নানা কারণে সমাদৃত। প্রত্যন্ত এলাকার মানুষ তাদের পশুদের এই বাজারে নিয়ে আসত।”

হাইকমিশনারের সঙ্গে আলাপন :সমসাময়িক বিষয় রেজিনা আহমেদ, মান্যবর হাইকমিশনার, মরিশাস

২৬ জুলাই, রবিবার -মরিশাস : রাত ৮.৩০ টা, বাংলাদেশ : রাত ১০.৩০ টাআকাশযাত্রার সঙ্গে যুক্ত থাকার আমন্ত্রণ নিচের যে কোন একটি লিংকে :https://www.facebook.com/akashjatrafans https://www.facebook.com/akashjatrabdমরিশাসপ্রবাসীদের যে কােন বিষয়ে জানার থাকলে কমেন্টসে প্রশ্ন দিতে পারেন। অতিথি আলোচকশাহিন সরদার, পরিচালক, বিসিসি ফ্যামিলি স্কুলব্যারিস্টার দিলরুবা নাওশিন আইনজীবী, মরিশাসশাহ আলম খান, ব্যবসায়িক ব্যক্তিত্ব, মরিশাসনাজমুল বাসার, কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব, মরিশাসমোহাম্মদ হাফিজ, কমিউনিটি সংগঠক, মরিশাসজহিরুল মিনা, প্রবাসী ব্যবসায়ী, মরিশাসপরিকল্পনা ও পরিচালনা : এজাজ মাহমুদ. প্রধান সম্পাদক-আকাশযাত্রাসঞ্চলনায় : আহমেদ তোফায়েল, সাংবাদিক ও উপস্থাপকসমন্বয় : মোহাম্মদ হাফিজ, কমিউনিটি সংগঠক, মরিশাস

Posted by AkashJatra on Sunday, July 26, 2020

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

Loading...